Breaking News

বিড়ালের কানের মাইট (Ear Mites):

বিড়ালের কানের মাইট (Ear Mites):

√ এটি একটি সাধারণ বাহ্যিক পরজীবী
√ কানের মাইট দিয়ে আক্রান্ত বিড়ালগুলি সাধারণত কানের দিকে অতিরিক্ত মাত্রায় স্ক্র্যাচ করে এবং মাথা ঝাকি দেয়
√ এমনকি নিজের শরীর নিজে চুলকায় এবং চুলকানির সাথে সাথে রক্ত ​​আঁসতে পারে। 
√ কিছু বিড়াল তাদের মাথা এতটা নাড়া দেবে যে কানের ভেতরে হেমাটোমা তৈরি হবে (রক্তনালী ভেঙে যাওয়ার কারণে কানের মধ্যে রক্ত ​​জমাট বাধা)।
√ উদ্বেগের বিষয় হ’ল যখন বিড়ালরা তাদের কানে স্ক্র্যাচ করে তখন কানের ড্রামগুলিতে আঘাত ও ক্ষত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে
√ যেকোনও বয়সের বিড়ালই এয়ার মাইটস এ আক্রান্ত হতে পারে।
√ এটি অত্যন্ত সংক্রামক একটি ব্যাধি যা বাবা-মায়ের কাছ থেকে নবজাতকের কাছেও যেতে পারে।

লক্ষণসমূহ:

√ কান, মাথা এবং ঘাড়ে চুলকানি
√ কখনও কখনও পুরো শরীরে সাধারণ চুলকানি
√ কানে এবং মাথার চারপাশে অতিরিক্ত স্ক্র্যাচিং
√ ঘন ঘন মাথা নারানো
√ কানে ঘন লাল-বাদামী বা কালো crusts
√ কানের পিছনে দিকে ঘর্ষণ ও আঁচড়ানো
√ ঘাড় এবং লেজের উপর crusting এবং স্কেল

রোগ নির্ণয়:

√ আপনার প্রাণিচিকিৎস্যককে আপনার বিড়াল এর স্বাস্থ্য ও রোগের লক্ষণগুলো সমন্ধে সম্পূর্ণভাবে অবহিত করুন।

√ আপনার প্রাণিচিকিত্সক আপনার বিড়ালের রোগ নিশ্চিত করার জন্য স্ট্যান্ডার্ড ল্যাব টেস্ট, যেমন রক্তের​​প্রোফাইল, ইউরিনালাইসিস এবং একটি ইলেক্ট্রোলাইট প্যানেল সহ আপনার বিড়ালের উপরে একটি সম্পূর্ণ শারীরিক পরীক্ষা করবে।

√ পরীক্ষাগার বিশ্লেষণের জন্য নেওয়া ত্বকের স্ক্র্যাপিং সহ একটি ডার্মাটোলজিক পরীক্ষা করা হবে।

√ মাইটগুলি সনাক্ত করতে আপনার বিড়ালের চিকিৎসক একটি অটোস্কোপ ব্যবহার করতে পারেন, যেখানে কানের মাইটগুলি সরাসরি কানের মধ্যে দৃশ্যমানভাবে দেখা যাবে।

চিকিৎসা:

√ যেহেতু এই সংক্রমণটি খুব সংক্রামক, একই পরিবারের সমস্ত প্রাণীকে একই সাথে চিকিৎসা করা উচিত এবং আশেপাশের পরিবেশ খুব ভালভাবে পরিষ্কার করা উচিত।

√ মাইটগুলি প্রাণীর শরীর থেকে বেশি দূরে টিকে থাকে না,
তাই ঘর পরিষ্কার করার জন্য যথেষ্ট পরিমাণে সচেতন হওয়া দরকার ।

√ আপনার বিড়ালের কান পুরোপুরি পরিষ্কার করার দিকে বিশেষ নজর দিতে হবে।

√ বাণিজ্যিকভাবে ইয়ার ক্লিনার পাওয়া যায়, যা বিড়ালদের জন্য কান হালকাভাবে পরিষ্কার করতে ব্যবহার করা যেতে পারে।

√ পরজীবী নাশক ওষুধ নির্দিষ্ট পরিমান ডোজ এ, অবশ্যই অভিজ্ঞ প্রাণি চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী ব্যবহার করা উচিত ।

√ যেহেতু বিড়াল তাদের লেজ মাথার কাছে কুঁকড়ে নিয়ে ঘুমায়, তাই লেজটিও ভালভাবে পরিষ্কার করতে ভুলবেন না।

√ বিড়ালকে ঘরের বাহিরে যাওয়া থেকে বিরত রাখতে হবে ।

কৃতজ্ঞতায়

ডা: সুজন কুমার সরকার
প্রভাষক
এনাটমি, হিস্টোলোজি ও ফিজিওলোজি বিভাগ
এনিম্যাল সাইন্স এন্ড ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদ
শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা

কনসালটেন্ট
ভেট এন্ড পেট কেয়ার
হুমায়ুন রোড, মোহাম্মদপুর, ঢাকা

বিলাইয়ের Ear Mite
Otodectes cynotis দিয়ে সবথেকে বেশি হয়ে থাকে, কন্টাজিয়াস বিধায় এক বিলাই থেকে আরেক বিলাই, এবং মায়ের মাধ্যমে বাচ্চারাও আক্রান্ত হতে পারে। তো আমার কি ? না ভাই-বোনেরা একটু সাবধানে আমাদেরও হ্যান্ডেল করতে হবে।
এটি জোনোটিক এক্টোপ্যারাসাইট সুতরাং মানুষও আক্রান্ত হতে পারে।

ক্লিনিক্যাল সাইনঃ ওটিটিস এক্সটার্না তার প্রধান আবাস্থল। আপনি দেখবেন ইয়ার ক্যানেল এবং আশেপাশের জায়গা জুরে বাদামি-কালো ডেব্রিশ, বিলাই কান চুলকায় খুব, মাথা ঝাকায়, ইনফেস্টেশন বেশি মাত্রায় হলে শরীরের ভাজে ভাজে ,খাজে খাজেও তাদের কলনি দেখা যাবে। ট্রিট্মেন্ট ছাড়া অনেক দিন এ অবস্থায় থাকলে ফাংগাল ইনফেশটেশনও হতে পারে।

চিকিৎসা করা দরকার?
ইনফেস্টেশন এরিয়া টা সুন্দর করে সময় নিয়ে ক্লিন করা লাগবে ভাই। পভিসেপ/ভায়োডিন অথবা নরমাল স্যালাইন দিয়েও ইনফেক্টেড এরিয়াটা আগে একটু ভিজিয়ে নরম করে তারপর কটন বাড দিয়ে ক্লিন করতে পারেন( যদি ল্যাটাফ্যাটা অবস্থা দেখেন)
১) টপিক্যালিঃ আইভারমেক্টিনের চেয়ে ভালো অপশন আর হয় না। আমি নিজে এ ছাড়া আর কিছু তাই ট্রাই ও করি নাই।
২) সিস্টেমিক্যালিঃ এবারেও আইভারমেকটিন(১%) । Orally 0.2mg/kg (সিঙ্গেল ডোজ q7d ,4 treatment. Subcutaneously(S/C) তেও সেইম ডোজ তবে q14d আর 2 or 3 treatment লাগবে।

Reminder: Ear Mite এর লাইফ সাইকেল ২১ দিনের. তাই আপনাকে ডোজ কমপ্লিট করতেই হবে। নইলে ইনফেস্টেশন আবারো দেখা দিতে পারে। বিলাইয়ের মালিক বলবে ডাক্তার বালা না।

Ear Mite
Otodectes cynotis দিয়ে সবথেকে বেশি হয়ে থাকে,কন্টাজিয়াস বিধায় এক বিলাই থেকে আরেক বিলাই, এবং মায়ের মাধ্যমে বাচ্চারাও আক্রান্ত হতে পারে। তো আমার কি ? না ভাই-বোনেরা একটু সাবধানে আমাদেরও হ্যান্ডেল করতে হবে।
এটি জোনোটিক এক্টোপ্যারাসাইট সুতরাং মানুষও আক্রান্ত হতে পারে।

ক্লিনিক্যাল সাইনঃ ওটিটিস এক্সটার্না তার প্রধান আবাস্থল। আপনি দেখবেন ইয়ার ক্যানেল এবং আশেপাশের জায়গা জুরে বাদামি-কালো ডেব্রিশ, বিলাই কান চুলকায় খুব, মাথা ঝাকায়, ইনফেস্টেশন বেশি মাত্রায় হলে শরীরের ভাজে ভাজে ,খাজে খাজেও তাদের কলনি দেখা যাবে। ট্রিট্মেন্ট ছাড়া অনেক দিন এ অবস্থায় থাকলে ফাংগাল ইনফেশটেশনও হতে পারে।

চিকিৎসা করা দরকার?
ইনফেস্টেশন এরিয়া টা সুন্দর করে সময় নিয়ে ক্লিন করা লাগবে ভাই। পভিসেপ/ভায়োডিন অথবা নরমাল স্যালাইন দিয়েও ইনফেক্টেড এরিয়াটা আগে একটু ভিজিয়ে নরম করে তারপর কটন বাড দিয়ে ক্লিন করতে পারেন( যদি ল্যাটাফ্যাটা অবস্থা দেখেন)
১) টপিক্যালিঃ আইভারমেক্টিনের চেয়ে ভালো অপশন আর হয় না।
২) সিস্টেমিক্যালিঃ এবারেও আইভারমেকটিন(১%) । Orally 0.2mg/kg (সিঙ্গেল ডোজ q7d ,4 treatment. Subcutaneously(S/C) তেও সেইম ডোজ তবে q14d আর 2 or 3 treatment লাগবে।

Reminder: Ear Mite এর লাইফ সাইকেল ২১ দিনের. তাই আপনাকে ডোজ কমপ্লিট করতেই

Please follow and like us:

About admin

Check Also

খরগোশের ব্রংকোনিউমোনিয়া

প্রবলেমঃ Bronchopneumonia স্পিসিসঃ রেবিট(খরগোশ) , #লক্ষনঃ acute or peracute কেস এ হঠাত করেই মারা যাবে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Translate »
error: Content is protected !!