Breaking News
টার্কির কলেরা
টার্কির কলেরা

টার্কির কলেরা –

টার্কির  কলেরা 

কলেরা(avian haemorrhagic septicemia) একটি ব্যাকটেরিয়া জনিত ছোঁয়াচে রোগ।

এ রোগ  যে কোন এলাকায় যে কোন  সময়  দেখা দিতে পারে।এ রোগ সেপ্টিসেমিক  যার ফলে আক্রান্ত পাখিতে উচ্চ মরবিডিটি ও মরটালিটি  দেখা দেয় ।কলেরা গ্রীষ্মকালের শেষে,বর্ষাকালে ও শীতকালে বেশি হয়।।পাসচুরেলা মাল্টোসিডা নামক  গ্রাম নেগেটিভ ব্যাক্টেরিয়া দিয়ে হয়।।ফাউল কলেরা পৃথিবীর অধিকাংশ দেশেই স্পোরাডিকেলি  রয়েছে।

বিস্তারঃ
চড়ুই,কবুতর,বয়স্ক পাখি  ও ইঁদুর  বাহক হিসেবে কাজ করে।

ইঁদুরের ভূমিকা ১০% ।আক্রান্ত খামারের খাদ্য,খাদ্যের ব্যাগ ও অন্যান্য সরঞ্জাম এ রোগের ক্যারিয়ার হিসেবে কাজ করে।

 এপিডিমিওলজি
তীব্র আক্রমণের ক্ষেত্রে টার্কি কয়েকদিনের মধ্যে মারা যেতে পারে।এ রোগ অতি সহজেই বিস্তার লাভ করে।বাড়ন্ত টার্কির  বেশি সংবেদনশীল হলেও  বয়স্ক টার্কির ক্ষেত্রেও  মারাত্মক।১৯৩২ সালে টার্কিতে ফাউল কলেরা ১ম  সনাক্ত হয় ম্যারিল্যান্ড এ। মরার হার ছিল ১৭% ।জলবায়ুর পরিবর্তন ,পুষ্টি,অতিরিক্ত গরম ও ঠান্ডা জনিত ধকল ইত্যাদি এ রোগকে প্রভাবিত করে।

মৃত্যুর হার ০ থেকে ২৫% ।ডিম উৎপাদন কমে যায় ।খাদ্য ও পানি  কম খায়।ওজন হ্রাস পায়।

লক্ষণঃ

জ্বর,অরুচি,পালক ঝুলে পড়া।মুখ দিয়ে লালা ঝড়া

ডায়রিয়া।ঝিমানোভাব।তীব্র প্রকৃতির সংক্রমণ হলে  কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই মারা যায়।

মৃত্যুই হলো প্রথম লক্ষণ।শ্বাস প্রশ্বাসের গতি বেড়ে যায়।

পায়খানা প্রাথমিকভাবে পাতলা ও পর সাদাটে হবে।

পরবর্তীতে সবুজাভাব পায়খানার সাথে অতিরিক্ত মিউকাস থাকবে।

মৃত্যুর পূর্বে মাথার ঝুটি ও ওয়াটলে সায়ানোসিস দেখা দেয়।

পোস্টমর্টেমঃ

পেটিকিয়াল  ও ইকাইমোটিক  হেমোরেজ দেখা যাবে । বিশেষ করে সাবইপিকার্ডিয়াল ও সাবসিরোসাল  এ।ফুসফুস,এবডোমিনাল ফ্যাট,ইনটেস্টাইনাল মিউকোসায়  রক্ত দেখা দেয়।পেরিকার্ডিয়াল ও পেরিটোনিয়াল ফ্লুইড বেড়ে যাবে।

কলিজা  বড় হবে।লিভারে নেক্রোটিক ফোকাই থাকবে।
টার্কির ফুসফুস ব্যাপকভাবে আক্রান্ত হবে ।

টার্কিতে নিউমোনিয়া দেখা দিতে পারে।ফ্যারিংস,ক্রোপ এবং ইনটেস্টাইনে প্রচুর পরিমাণে থকথকে মিউকাস থাকবে।টর্টিকলিস  দেখা যাবে।

চিকিৎসাঃ
ডা  উপস্থিত পরিস্থিতি বিবেচনা করে চিকিৎসা দিবে।

প্রতিরোধঃ
ব্যবস্থাপনা,স্যানিটেশন,ফার্ম পরিস্কার  রাখা

ইঁদুর ও টিকটিকি থেকে ফার্মকে মুক্ত রাখা।

কুকুর,শেয়াল,বিড়াল শূকর ইত্যাদি যাতে ফার্মে না আসতে পারে।

অসুস্থ টার্কি দ্রুতই সুস্থ টার্কি থেকে অন্যত্র সরিয়ে দিতে হবে।

মৃত টার্কি মাটির নিচে পুঁতে রাখতে হবে ।কলেরা টিকা দিতে হবে।

Please follow and like us:

About admin

Check Also

টার্কির রোগ ব্যাধি এবং ভ্যাক্সিন সিডিউল

রোগঃ ১।সালমোনেলোসিস(সালমোনেলা এরিজোনা) সালমোনেলা মুক্ত ব্রিডার থেকে আনতে হবে। ২।এ আই ৩।কলেরাঃ মৃত্য হার ৬০-৯০%,৬ …

Translate »
error: Content is protected !!